ওয়েব হোস্টিং বিজনেস এর জন্য ক্লায়েন্ট এবং বিলিং ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম সিলেক্ট করুন

ওয়েব হোস্টিং বিজনেস করতে  আপনার প্রয়োজন হবে ক্লায়েন্ট ম্যানেজমেন্ট , সাপোর্ট পোর্টাল , বিলিং সিস্টেম , সার্ভিস অর্ডার সিস্টেম আরও অনেক কিছু । আর এজন্য আছে ওয়েব এপ্লিকেশন । যা দ্বারা আপনি খুব সহজেই আপনার ক্লায়েন্ট মেনেজ থেকে শুরু করে হোস্টিং বিজনেস পরিচালনা করতে পারবেন ।

ওয়েব হোস্টিং পরিচালনা বা ম্যানেজমেন্ট এর জন্য অনেক সফটওয়্যার আছে , খুব বেশি ইউজার ফ্রেন্ডলি এবং বহুল ব্যবহৃত কয়েকটি –

  1. WHMCS
  2. Blesta
  3. HostBill
  4. Clientexec
  5. Whmautopilot

বর্তমানে সব থেকে বেশি ব্যবহৃত ওয়েব হোস্টিং ক্লায়েন্ট ম্যানেজমেন্ট , বিলিং , এবং ক্লায়েন্ট সাপোর্ট সফটওয়্যার এর মধ্যে WHMCS অন্যতম । অফিসিয়াল ওয়েব সাইট থেকে দেখে নিতে পারেন  http://www.whmcs.com/features/

—————————————-

লেখক: মোঃ  জোবায়ের আলম বিপুল
প্রতিষ্ঠাতা ,  হোস্ট মাইট

ডোমেইন রিসেলার প্রোভাইডার সিলেক্ট করুন

হোস্টিং বিজনেস এর সাথে  রিলেটেড সার্ভিস হচ্ছে ডোমেইন ,  প্রায় সকল হোস্টিং প্রোভাইডারই ডোমেইন বিক্রি করে থাকে । কেননা ডোমেইন এন্ড হোস্টিং হল একে অপরের পরিপূরক সেবা ।
কাজেই হোস্টিং বিজনেস শুরু করার আগে একটি ভাল এবং বিশ্বত যায়গা থেকে ডোমেইন রিসেলার নিতে হয় ।

ডোমেন রিসেলার নেবার আগে যে বিষয় গুলো খেয়াল রাখবেন –

  • আপনার ডোমেইন প্রোভাইডার হতে হবে বিসস্থ এবং অভিজ্ঞতা সম্পূর্ণ , কেননা আপনার ক্লায়েন্ট এর সকল ডোমেইন তার নিয়ন্ত্রণ থেকে আপনি নিচ্ছেন
  • যেহেতু আপনি বিজনেস করতে চাচ্ছেন সেহেতু কম মূল্যে ভাল সেবা নিতে ট্রাই করবেন । ম্যানেজমেন্ট ভাল নলেজ থাকলে  ডোমেইন এ সাপোর্ট এর প্রয়োজন পরে না খুব একটা , কাজেই দেখে শুনে ট্রাস্টেড কোণ কোম্পানি থেকে নিয়ে নেন
  • আপনাকে কি কি ফিচার দিবে তা বুজে নিবেন , যেমন মাস্টার কন্ট্রোল , হোয়াইট ল্যাভেল কন্ট্রোল প্যানেল  , API  সুবিধা এবং  বিলিং সফটওয়্যার সাপোর্টেড  এসব দেখে নিবেন । কাড়ন বিজনেসে এসব জরুরি
  • ডোমেইন প্রাইভেসি প্রটেকশন অফার করে কিনা , করলে কেমন প্রাইজ বা ফ্রী কিনা ।  ডোমেইন রিসেলার এর সাথে এখন ফ্রী প্রাইভেসি প্রটেকশন অফার করে অনেক প্রোভাইডার । কাজেই  যারা ফ্রী অফার করে চেষ্টা করবেন তাদের থেকে নিতে
  • ইউ আর এল  ফরোয়ার্ডিং , ডোমেইন ফরোয়ার্ডিং,  ডি এন এস ম্যানেজমেন্ট  যারা সহজেই  দিয়ে থাকে  তাদের থেকে নিতে ট্রাই করবেন
  • ডোমেইন ট্র্যান্সফার কোড , বা ডোমেইন ট্র্যান্সফারে কোন সীমাবদ্ধতা আছে কিনা তা জেনে নিবেন
  • কি কি টিএলটি অফার করে সেটা জেনে নিবেন , বিশেষ করে ব্যবহৃত  টপ ল্যভেল ডোমেইন অফার করে কিনা তা দেখে নিবেন

—————————————-

লেখক: মোঃ  জোবায়ের আলম বিপুল
প্রতিষ্ঠাতা ,  হোস্ট মাইট

সঠিক প্লাটফর্ম সিলেক্ট করুন ওয়েব হোস্টিং বিজনেস এর জন্য

ওয়েব হোস্টিং বিজনেস শুরু করার আগেই সিলেক্ট করুন কোন ল্যাভেল থেকে আপনি বিজনেস শুরু করবেন । একটি  হোস্টিং রিসেলার নিয়েও আপনি আপনার বিজসেন শুরু করতে পারেন আবার  শুরু করতে পারেন ভিপিএস বা ডেডিকেটেড সার্ভার নিয়েও ।

চলুন দেখে নেয়া যাক কোনটা আপনার জন্য উপযুক্ত ,

রিসেলার হোস্টিং – আপনি একজন ডেভেলপার  , আপনার নিজের বা ক্লায়েন্টের  কিছু ওয়েব সাইট এর জন্য হোস্টিং প্রয়োজন পরে , আপনার অপেক্ষাকৃত মূলধন কম , আপনার ওয়েব হোস্টিং টেকনিকাল নলেজ কম ,  ক্লায়েন্ট সংখ্যক কম , হোস্টিং সাপোর্ট  বাজেট কম বা আপনি একাই সাপোর্ট এজেন্ট । – হা আপনি রিসেলার হোস্টিং নিয়ে হোস্টিং বিজনেস শুরু করতে পারেন ।

ভিপিএস নিয়ে- একটু বেশি মূলধন , ভাল টেকনিক্যাল নলেজ , একাধিক সাপোর্ট এজেন্ট , পার্টনারশিপ বিজনেস , বেশ ভাল সংখ্যক ক্লায়েন্ট । – হা আপনি ভিপিএস হোস্টিং নিয়ে হোস্টিং বিজনেস শুরু করতে পারেন ।

ডেডিকেটেড-  বেশি মূলধন , ভাল টেকনিক্যাল নলেজ , পার্টনারশিপ বিজনেস , একাধিক সাপোর্ট এজেন্ট , বেশি  সংখ্যক ক্লায়েন্ট । – হা আপনি ডেডিকেটেড  নিয়ে হোস্টিং বিজনেস শুরু করতে পারেন ।

—————————————-

লেখক: মোঃ  জোবায়ের আলম বিপুল
প্রতিষ্ঠাতা ,  হোস্ট মাইট

ডোমেইন কেনার সময় যে বিষয়গুলো খেয়াল রাখা বাঞ্ছনীয়

  • ডোমেইন নেম কেনার আগে অবশ্যই ডোমেইন প্রোভাইডার সাথে বিস্তারিত কথা বলে নিবেন। যেমন – আপনার ডোমেইন এর ফুল কন্টুল পাবেন কিনা,পরের বছর টাকা কেমন রাখবে,আপনার ডোমেইন এর কেমন নিরাপত্তা থাকবে ।
  • ডোমেইন কেনার সময় আমরা যে ভুলটি করে থাকি তা হল তারাহুরা করে ডোমেইন কিনে ফেলি এই কাজটা কখনোই করা উচুত না ।কেননা ডোমেইন একটা ইউনিক নেম যা আপনার বা আপনার প্রতিষ্ঠানের একক নেম, যার অদ্বিতীয়টি আর হবে না । তাই কেনার আগে ভাল করে ভেবে চিন্তে নিবেন।
  • সবসময় খেয়াল রাখবেন ডোমেইন টি যেন টপ লেভেল হয়। যেমন- .Com, .Net, .Org । তবে .Com নেয়াই বাঞ্ছনীয়। কেননা .Com টাই বেশি  ব্যবহারিত এবং সহজ বোধ্য।
  • আপনার ডোমেইন  আপনার  প্রতিষ্ঠানের নামের সাথে মিলিয়ে পছন্দ করুন । যাতে ভিজিটর আপনার ডোমেইন  দেখেই  আপনার প্রতিষ্ঠান সম্পর্কে ধারনা নিতে পারে  ।
  • ডোমেইন নেম নির্বাচন এর ক্ষেত্রে  ডোমেইন  যথাসম্ভব ছোট রাখতে চেষ্টা করবেন এবং অর্থবোধক এবং কীওয়ার্ড বিত্তিক ডোমেইন  নেবেন।
  • নিউমেরিক কী ব্যবহার না করাই ভাল এবং নামের মাঝে  (-) ব্যবহার না করাই বাঞ্ছনীয় ।
  • ডোমেইনটি যাতে অন্য কোন জনপ্রিয় সাইটের সাথে মিলে না যায় সেদিকে খেয়াল রাখবেন । কেননা, এতে যেমেন  ভিজিটর দের মাঝে কনফিউশন তৈরি হবে তেমনি  সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশনে সমস্যা হতে পারে ।

—————————————-

লেখক: মোঃ  জোবায়ের আলম বিপুল
প্রতিষ্ঠাতা ,  হোস্ট মাইট

আপনার ওয়েব হোস্টিং বিজনেস এর জন্য একটি সুন্দর নেইম পছন্দ করুন

ওয়েব হোস্টিং বিজনেস করার জন্য সুন্দর একটি ডোমেইন নেইম খুব গুরুত্বপুর্ন  । ডোমেইন নেইম কেনার আগে অবশ্যই নিচের লেখাটি পড়ে নিবেনঃ

  • ডোমেইন কেনার সময় যে বিষয়গুলো খেয়াল রাখা বাঞ্ছনীয়
  • ডোমেইন নেইম অবশ্যই হোস্টিং রিলেটেড নিতে ট্রাই করবেন । যেমন –  Hostmyname.com , mynameHost.com
  • চেস্টা করবেন টপ ল্যাভেল ডোমেইন নেইম নেয়ার । যেমন .com , .net  তবে .com সবথেকে বেটার
  • নামটি যেন সহজ সরল হয় , উচ্চারণ এবং স্পেলিং য়ে মিল রাখতে চেস্টা করবেন ।
  • এবং অন্য কোন  হোস্টিং কোম্পানির নামের সাথে যেন মিল না থাকে । যেমন ,  hostmight.com নামে একটি  হোস্টিং কম্পানি আছে , তখন mighthost.com নামে নেইম পছন্দ না করাই ভাল ।

—————————————-

লেখক: মোঃ  জোবায়ের আলম বিপুল
প্রতিষ্ঠাতা ,  হোস্ট মাইট

ওয়েব হোস্টিং তথা ওয়েব হোস্টিং বিজনেস সম্পর্কে ভাল ধারনা

ওয়েব হোস্টিং বিজনেস শুরুর আগে অবশ্যই ওয়েব হোস্টিং এবং ওয়েব হোস্টিং বিজনেস সম্পর্কে বিস্তর ধারনা রাখতে হবে । ওয়েব হোস্টিং নলেজের পাশাপাশি বিজনেস পরিচালনা , মার্কেটিং , হোস্টিং মার্কেট এ সম্পর্কে  জানতে হবে ।

ওয়েব হোস্টিং এর বেসিক কিছু ধারনা

  1. ওয়েব হোস্টিং
  2. শেয়ার্ড হোস্টিং
  3. রিসেলার হোস্টিং
  4. ভিপিএস হোস্টিং
  5. ডেডিকেটেড সার্ভার

—————————————-

লেখক: মোঃ  জোবায়ের আলম বিপুল
প্রতিষ্ঠাতা ,  হোস্ট মাইট

ওয়েব হোস্টিং কোম্পানির জন্য পেমেন্ট গেটওয়ে

ওয়েব হোস্টিং বিজনেসে পেমেন্ট গেটওয়ে প্রয়োজনীয় একটি  টুলস ; পেমেন্ট গেটওয়ের মাধ্যমে ক্রেডিট বা ডেবিট ( লোকাল বা ইন্টারন্যাশনাল ) কার্ডে পেমেন্ট নিতে পারবেন ;  আর এই সেবা দিচ্ছে নিচের প্রতিষ্ঠান গুলো –

  1. sslwireless.com
  2. easypayway.com
  3. walletmix.com
  4. shurjorajjo.com.bd
  5. portwallet.com

প্রশ্ন থাকলে মন্তব্যে জানাতে পারেন ;